গোপালের মিষ্টি, খানের চা, সাধুর পান- রমরমা বকুলতলা: আতা সরকার

গোপালের মিষ্টি মুখে দিয়েই আমার মিষ্টি-সুখ বোধহয় শুরু। জামালপুর টাউনের মধ্যমণি সেই বকুলতলার এপাশে গোপালের মিষ্টির দোকান। ওপাশে খানের চা।

Read more

স্মৃতিকথা: টিমটিমে আলোর ঝিমঝিম শহর- আতা সরকার

আমাদের শহর জামালপুরে তখনো বিজলি আসেনি। আমার শৈশবে। বাল্যে। না রাস্তায়। না ঘরবাড়িতে। না দোকানপাটে। সিনেমা হলগুলোতে জেনারেটর চলে। আমরা বলি ডায়নামো। তাই চলে ছবির বেশ খানিক আগে থেকে। তার গুরুগম্ভীর আওয়াজের সাথে জ্বলে বিজলী বাতি, চলে ফ্যান, বাজে উচ্চগ্রামে গান, চলে সিনেমা। এ ছাড়া আর সব জায়গায় টিমটিম আলো। ভূতুড়ে ভূতুড়ে লাগে।

Read more

বায়ান্নোর অগ্নিগর্ভকালে জন্মেছি উত্তাল জামালপুরে- আতা সরকার

দেখা হয় নাই ভাষা আন্দোলনের দিনগুলো। তার উত্তাপ কি অনুভব করেছি মাতৃগর্ভে? আব্বা সরকারি চাকুরে। জামালপুর শহরের এক মেসে থাকেন।

Read more

স্মৃতিকথা- ব্রহ্মপুত্রের বুকে: জামালপুর থেকে বকসীগঞ্জ- আতা সরকার

ধবল রাত। ফকফকা জ্যোছনা ভাসিয়ে নিয়ে যাচ্ছে চরাচর। চাঁদকে সাথে নিয়ে চাঁদের সাথে পাল্লা দিয়ে ছুটছে গয়না নাও। কূল নাই

Read more

জামালপুরের রঙময় স্বপ্নদিন: বাল্যকালের সিনেমা হল- আতা সরকার

আতা সরকার কবে থেকে সিনেমা হলে ছবি দেখা? সিনেমাকে ছবিই বলা হতো। টকিও। আবার কখনো কখনো আলাপচারিতায় বলা হতো, অমুক

Read more