দেওয়ানগঞ্জ-সানন্দবাড়ি সড়ক: আর কতো দুর্ভোগ?

দেওয়ানগঞ্জ থেকে উত্তরাঞ্চলের সাথে যোগাযোগের একমাত্র পথ দেওয়ানগঞ্জ-সানন্দবাড়ি সড়কের বেহাল দশা কয়েক বছর থেকে । ক্রমাগত অবহেলায় এই যাতায়াত পথের এতটাই খারাপ অবস্থা যে এই পথে না ভ্রমন করলে তা উপলদ্ধি করা সম্ভব নয় ।

এই সড়কে চলাচলকারী হাজারো মানুষের অচিন্তনীয় দুর্ভোগ সত্ত্বেও সংস্কারে নেওয়া হয়নি কোন উদ্যেগ । খানাখন্দে ভরা ভাঙ্গা-চোড়া রাস্তায় প্রতিনিয়তই ঘটছে দুর্ঘটনা । এমনকি দেওয়ানগঞ্জের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা পোল্লাকান্দি ব্রীজের ডেকে ভয়াবহ ভাঙ্গনের সৃষ্টি হয়ে তা ক্রমাগত বাড়তে থাকলেও তা সংস্কারে কোন উদ্যেগ লক্ষ্য করা যায় নি ।

রাস্তা হয়ে গেছে জলাশয়- সরদারপাড়া, বাহাদুরাবাদ

সবচেয়ে ভয়াবহ দশা বাহাদুরাবাদ এলাকার সর্দারপাড়া এলাকায় যেখানে যাত্রীবাহী গাড়িগুলো যাত্রীসমেত চলাচল করতে পারে না । যাত্রী নামিয়ে খালি গাড়ি পার করে তারপর খালি গাড়ি পার করতে হয় সেখানে । মাঝে মধ্যে বড় গাড়িগুলো ফেসে গেলে সৃষ্টি হয় অচলাবস্থার ।

আটকে পড়া গাড়ি ঠেলছে মানুষ- দেওয়ানগঞ্জ-সানন্দবাড়ি রোড

সড়কের এমন দুর্দশায় হতাশ এই রাস্তায় চলাচলকারী হাজারো মানুষ । ঝুঁকিপূর্ণ ও খানাখন্দের রাস্তায় চলাচল করতে গিয়ে তারা এতটাই ক্ষুদ্ধ যে, সড়কে চলার সময় যেকোন গাড়িতেই জনপ্রতিনিধিদের প্রতি যাত্রীদের অশ্রাব্য ভাষায় গালমন্দ শোনা যায় ।

এই সড়কে ভ্রমনের সময় সহযাত্রী নাম প্রকাশে অনিচছুক দেওয়ানগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের একজন নেতা জানান, “এই অঞ্চলে আওয়ামী লীগের সকল অর্জন এই রাস্তার কারনে ম্লান হয়ে যাচ্ছে । এটি দেওয়ানগঞ্জের প্রতি বিমাতাসূলভ আচরনের বহি:প্রকাশ । এবার নির্বাচনেও এর প্রভাব নিশ্চয়ই পড়বে ।”

খানাখন্দে ভরা ঝুঁকিপূর্ণ সড়ক- ছবি-জামালপুর বার্তা

এই ভ্রমনে  আরেকজন সহযাত্রী আবদুল্লাহ আল আমিন, যিনি নিয়মিত এই সড়কে চলাচল করেন তিনি জানালেন, “এই রাস্তায় আমাকে প্রতিদিন বাহাদুরাবাদ থেকে দেওয়ানগঞ্জ যেতে হয় কিন্তু খারাপ রাস্তার কারনে গাড়ির ঝাকুনিতে শরীর ব্যথা করে । আর আগে যেখানে বাহাদুরাবাদ থেকে দেওয়ানগঞ্জ যেতে পনের-বিশ মিনিট লাগত এখন লাগে চল্লিশ মিনিট ।”

তবে অটোরিক্সা চালক আইনুল বললেন ভিন্ন কথা ! তার মতে “আমরা মাইনা নিছি আমাগো কফালে কষ্ট ছাড়া কিছু নাই । আমাগো কতা শুনারতো কেউ নাই । যদ্দিন এই রাস্তায় চলমু কষ্ট করনই নাগব, তয় নেতারা কোন শরমে এবার ভোট চাবার আসে তাই দেহুম”

কেউ জানেনা আর কতো কষ্ট করতে হবে এই অঞ্চলের মানুষের । হাজারো মানুষের কষ্ট লাঘবে অতি দ্রুত এই রাস্তা সংস্কারে ব্যবস্থা নেওয়া হবে এই আশায় দিন যাচ্ছে শুধু ।

মন্তব্য করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

nineteen − six =