ফেসবুকের মতো সাইট তৈরি করায় স্কুল শিক্ষার্থীকে হত্যার হুমকি বানোয়াট খবর

ফেসবুকের মতো সাইট তৈরি করায় স্কুল শিক্ষার্থীকে হত্যার হুমকি  এই শিরোনামে কত কয়েকদিন বাংলাদেশের প্রায় সবগুলো নিউজ সাইট এবং খ্যাতনাম টেলিভিশন চ্যানেলগুলো রিপোর্ট  করে । কিন্তু তা নিতন্তই বানোয়াট বলে আসল তথ্য দিয়েছে বাংলাদেশী হ্যাকারদের সংগঠন সাইবার একাত্তর । সাইবার একাত্তরের ফেসবুকে বলা হয়-

হ্যা, ফেসবুক এবং আমাদের চিলে কান নিয়ে যাওয়া কিছু মিডিয়ার কল্যাণে ব্যাপারটি সবার ই জানা। চিলের পিছে না দৌড়িয়ে আসুন জেনে নেই বিস্তারিত…

# আবরাব নূর অর্ণব একটা স্ক্রিপ্ট সেটাপ করেছেন মাত্র যা করতে ৩০ মিনিট লাগে। সেটা তিনি ৪ মাস সময় নিয়ে তৈরি করেছেন।
স্ক্রিপ্টের নাম wowonder.com, দাম ৫০ ডলার। সে ক্রিপ্টটি না কিনে ক্র্যাক [ফ্রি ভার্সন] সেটাপ করেছে। স্ক্রিপ্টের মালিকপক্ষ এটা জানতে পেরে তার সাথে যোগাযোগ করেছে, তাকে মেইলে এরকম কিছু জানিয়েছে “You are using an unauthorized and hacked version of our script. Please note, our copyright policy does not allow anyone to use hacked script. We are requesting you to kill the site immediately.” সাধারণ এরকম স্ক্রিপ্ট বা ডিজিটাল প্রোডাক্ট চুরি করলে মালিকপক্ষ থেকে এটা জানানো হয়। কিন্তু এই ছেলে এটা বুঝে বা না বুঝে “kill” শব্দটাকে “খুনের হুমকি” হিসেবে প্রকাশ করে তুলকালাম কান্ড করেছে।

# এটা সর্বোচ্চ ৩০ মিনিটের একটি কাজ এবং এরকম হাজারো সাইট পৃথিবীতে রয়েছে। বলতে পারেন একটা মূল্যহীন সাধারণ মাপের ই সাইট। কিন্তু সব রেখে হ্যাকাররা তার সাইটেই নজর দেয় এবং হ্যাক করে আবার খুনের ও হুমকি দেয়? তিনি ই সম্ভবত বিশ্বে প্রথম যে কিনা দাবী করেছে হ্যাকাররা খুনের হুমকি দিয়েছে…
ভাইরে…!! গাজার দাম কতো করে?

# ছেলেটা এটেনশন পাবার জন্য যেমন মিথ্যা দাবী করে ভুল করেছে, তার থেকে বড়ো ভুল করেছে হচ্ছে আমাদের দেশীয় সাংবাদিকরা। অন্তত তাদের উচিৎ ছিলো সংবাদটি প্রকাশের আগে কোন সাইবার বিশেষজ্ঞ থেকে পরামর্শ নেওয়া।

মিডিয়ার প্রতি অনুরোধ, যারা বাংলাদেশকে বিশ্বের কাছে তুলে ধরে তাদের নিয়ে সময় দিন। বাংলাদেশের সত্যিকার জিনিয়াসদের পৃষ্ঠকতা অর্জনে সহায়তা করুন। নচেৎ, যেভাবে চীন থেকে পার্টস আনিয়ে রোবট বানানোর দাবী করে আর আপনারা তাদেরকে উঠিয়ে দিন তাতে; আমাদের অকর্মণ্য জাতি হিসেবে প্রকাশ হতে আমাদের বেশিদিন লাগবে না।

 

মন্তব্য করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

10 + 19 =